• বুধবার   ২৭ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৩ ১৪২৭

  • || ০৪ শাওয়াল ১৪৪১

ষাট গম্বুজ বার্তা
২৪

করোনা সংকট নিয়ে বিএনপি কর্মকাণ্ড উপহাসের শামিল: ওবায়দুল কাদের

ষাট গম্বুজ টাইমস

প্রকাশিত: ১২ মে ২০২০  

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সরকারের সড়কপরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, করোনায় সংকট কবলিত মানুষের পাশে না দাঁড়িয়ে বিএনপি তাদের নেতাকর্মীদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করছে। দলটির এই কর্মকাণ্ড জনগণের দুঃখ-দুর্দাশার সঙ্গে উপহাসের শামিল।

রাজধানীর সংসদ ভবন এলাকায় নিজের সরকারি বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ মন্তব‌্য করেন তিনি। কাদের বলেন, ‘সারাদেশে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। খাদ্য সহায়তার পাশাপাশি আর্থিক ও চিকিৎসা সহায়তা দিচ্ছে। এ সময়ে প্রধানমন্ত্রী বয়স্ক ও অসহায়দের পাশে দাঁড়াতে নেতাকর্মীদের নির্দেশনা দিয়েছেন। সারাদেশে আওয়ামী লীগ পরিচালিত ত্রাণ কার্যক্রম করোনা সংকটে নতুন দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।’

তিনি দলীয় কর্মীদের ত্রাণ নিয়ে দুর্নীতির বিরুদ্ধে সতর্ক করে দিয়ে বলেন, ত্রাণ কার্যক্রমে স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতে শেখ হাসিনা সরকার কঠোর অবস্থানে। অনিয়ম-দুর্নীতির বিরুদ্ধে শেখ হাসিনার শুদ্ধি অভিযান এখনো চলমান রয়েছে।

সরকারকে দোষারোপ না করার অনুরোধ হানিফের

করোনাভাইরাসের সংকটে সরকারের দোষ খোঁজার চেষ্টা না করে ভালো পরামর্শ দেওয়ার জন্য রাজনৈতিক দলগুলোর নেতাদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ।

আজ দুপুরে এক ভিডিও বার্তায় এ আহ্বান জানান তিনি। হানিফ বলেন, এ সংকটকালে জাতির প্রত্যাশা ছিল, দুর্যোগ মোকাবিলায় সবাই আন্তরিক এবং মানবিক হবে। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে এ কঠিন সময়েও করোনাভাইরাস নিয়ে রাজনীতি বন্ধ হয়নি। চলছে পরস্পর দোষারোপ, চলছে কাঁদা ছোঁড়াছুড়ি।

তিনি বলেন, দেশের মানুষতো সব রাজনীতিবিদদের চিনে-জানে। তাদের অতীত এবং বর্তমান কর্মকাণ্ড নিয়েও দেশবাসী সজাগ। ক্ষমতাসীন দলের সরকার পরিচালনায় অভাবনীয় সফলতা, ব্যাপক উন্নয়ন ও অগ্রগতি যেমন দেখেছে, আবার কিছু কিছু ক্ষেত্রে সরকারের দুর্বলতাও তাদের চোখে পড়ছে। আমাদের বাইরে থাকা অন্যান্য রাজনৈতিক দলের দেশ পরিচালনায় সীমাহীন ব্যর্থতা, অযোগ্যতা এবং সীমাহীন দায়িত্বজ্ঞানহীন রাজনীতিও দেখেছে। তাহলে এ সমস্ত কাঁদা ছোঁড়াছুড়ির কি লাভ। তাই ক্ষমতার বাইরে যারা রয়েছেন তাদের প্রতি অনুরোধ অযথা সরকারে দোষ খোঁজার চেষ্টা না করে আপনাদের কোনো ভালো পরামর্শ থকলে এ দুর্যোগ মোকাবিলায় সেটা প্রকাশ করুণ। সরকার ভালো পরামর্শ গ্রহণ করবে। এটা বর্তমান পরিস্থিতে সব রাজনৈতিক দলের প্রতি বিনীত অনুরোধ করছি। এ দুর্যোগ অহেতুক অপ্রয়োজনীয় কথাবার্তা থেকে বিরত থাকুন।’

করোনা মোকাবিলায় সরকার প্রধান শেখ হাসিনার প্রশংসা করে তিনি বলেন, ‘এ উদ্বেগজনক পরিস্থিতিতে আমার আশা এবং ভরসার জায়গা একটাই সেটা হলো আমাদের প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা। যিনি শুরু থেকেই সীমিত সামর্থ নিয়ে লড়াই করে যাচ্ছেন এ দুর্যোগ মোকাবিলা করার জন্য। সব সময় তিনি প্রতিটি কাজের তদারকি করছেন, প্রয়োজনীয় নির্দেশানা দিচ্ছেন, সিদ্ধান্ত দিচ্ছেন, সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের জন্য মনিটরিং করছেন।’

দুর্যোগে চিকিৎসক বিশেষজ্ঞ ও সরকারের পরামর্শ মেনে চলার আহ্বান জানিয়ে হানিফ বলেন, ‘সাংবাদিক বন্ধুদের প্রতি অনুরোধ, এ দুর্যোগ চিকিৎসক বিশেষজ্ঞ এবং সংশ্লিষ্ট সেবা কর্তৃপক্ষের মতামত ও তাদের সিদ্ধান্ত, পরামর্শ জাতির সামনে তুলে ধরার চেষ্টা করুন। যার মাধ্যমে দেশের জনগণ উপকৃত হবে।’

রাজনৈতিক নেতাদের নিয়ে পরস্পরের দোষারোপ এখন আর দেশবাসী দেখতে চায় না মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের এ নেতা বলেন, ‘দুর্যোগ মোকাবিলায় সরকারের কর্মকাণ্ড মুল্যায়নের সময় এখনও হয়নি। আগে দুর্যোগ কেটে যাক পরে সরকারে প্রতিটি কর্মকাণ্ড চুলচেরা বিশ্লেষণ করে মুল্যায়ন করা যাবে, সমালোচনাও করা যাবে। এ দুর্যোগ শেষ না হওয়া পর্যন্ত চিকিৎসক বিশেষজ্ঞ ও সরকারের পরামর্শ মেনে চলুন। মানবিক হোন মানবতার হাত বাড়িয়ে দিন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর আস্থা রাখুন আর। আল্লাহর ওপর ভরসা রাখুন, ইনশাল্লাহ দুর্যোগ কেটে যাবে।’#

ষাট গম্বুজ বার্তা
ষাট গম্বুজ বার্তা
রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর