• বুধবার   ০১ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ১৮ ১৪২৬

  • || ০৭ শা'বান ১৪৪১

ষাট গম্বুজ বার্তা
সর্বশেষ:
কুমিল্লায় মাইক্রোবাস খাদে পড়ে নিহত ৩ ১ বাংলা নববর্ষের অনুষ্ঠান না করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২৯ বাংলাদেশির প্রাণহানী দিনাজপুরে পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত
৫৭

মোল্লাহাটে নতুন ঘর পাচ্ছে ৫৩টি অসহায় গৃহহীন পরিবার

ষাট গম্বুজ টাইমস

প্রকাশিত: ১৭ মার্চ ২০২০  

মোল্লাহাটে অসহায় গৃহহীন মানুষদেরকে দূর্যোগ সহনীয় ঘর দেওয়া হচ্ছে। জাতীর পিতার জন্মশতবার্ষিকী ও মুজিব বর্ষ উপলক্ষে উপজেলার ৫৩টি অসহায় পরিবার তাদের বসবাসের জন্য পাকা ঘর পাবে। এখন থেকে এই সব গৃহহীন মানুষ গুলো সাচ্ছন্দে বসবাস করবে। মোল্লাহাট উপজেলার আটজুড়ি গ্রামের অনিল ঢালী ঝুপড়ি ঘরে কাটিয়েছে যুগের পর যুগ। রোধ বৃষ্টি ঝড় ঝাপটার মধ্যে বেী ছেলে মেয়ে নিয়ে তাকে এই ঝুপড়ি ঘরে বাস করতে হয়েছে। জীবনের অর্ধশত বছর কাটানোর পর এই বৃদ্ধা এখন পাকা ঘরে ওঠার স্বপ্ন দেখছে। শুধু ঐ বৃদ্ধা নয় মোল্লাহাট উপজেলার তোফাজ্জেল হোসেন, খবির মোল্লা সহ আরো অনেকে পাকা ঘরে ওঠার স্বপ্ন দেখছে। মুজিববর্ষ উপলক্ষে সরকার দূর্য়োগ ব্যবস্থাপনা ও মন্ত্রনায়ের অধীনে মোল্লাহাটে ৮৬ লক্ষ ৯৫ হাজার ৯শত ৪০টাকা ব্যয়ে ৫৩ টি পরিবারকে পাকা ঘর নির্মাণ করে দিচ্ছে। ২লক্ষ ৯৯ হাজার ৮ শত ৬০ টাকা ব্যয়ে দুই কক্ষ বিশিষ্ট পাকা ওয়ালের উপর রঙিন টিনের ঘর সাথে বাথরুম এবং রান্না ঘর করা হচ্ছে। দেখলে দূর থেকে নজর কাড়ে। ঘর পেয়ে ঐ পরিবার এবং গ্রামের লোকজন বেজায় খুশি। উপজেলা প্রশাসন বলছে আগামী ১৭ মার্চ এই ঘরের উদ্বোধন করা হবে এবং পর্যায়ক্রমে দুস্থদের মাঝে ঘর বুঝিয়ে দেওয়া হবে।

প্রতিবেশী ত্রিবীনা বলেন, আমার কাকার থাকার মত কোন ঘর ছিলনা। আমার কাকা এখন সরকার থেকে একটা ঘর পেয়েছে, এখন তার ছেলে মেয়ে নিয়ে সুখে শান্তিতে বসবাস করতে পারবে, কাকা ঘর পাওয়াতে আমরা অনেক খুশি হয়েছি। ঘরের বিষয়ে অনিল ঢালী বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসনিা আমাকে যে ঘরটি দিয়েছে আমি অনেক খুশি।আমার আগে যে ঘর ছিল সে ঘরে আমি বাস করতে পারতামনা,ঘর দিয়ে পানি পড়তো।এখন ছেলে মেয়ে নিয়ে আমি ভাল ভাবে বসবাস করতে পারবো। আমি প্রধান মন্ত্রীর দীর্ঘায়ু কামনা করি। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাফ্ফারা তাসনীন বলেন অসহায়দের জন্য বরাদ্দের সর্বোচ্চ ব্যবহার করে আমরা রান্নাঘর, বাথরুম সহ দুই কক্ষ বিশিষ্ট পাকা ঘর নির্মান করে দিয়েছি। তারা এই ঘরে ভালভাবে বসবাস করতে পারবে। উপজেলা চেয়ারম্যান ও আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহিনুল আলম ছানা বলেন সরকার যে ঘর দিয়েছে তা খুবই মানসম্মত। তবে এলাকার জনগণের অনুপাত অনুযায়ী আরও কিছু ঘর প্রয়োজন।

ষাট গম্বুজ বার্তা
ষাট গম্বুজ বার্তা
বাগেরহাট বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর