• সোমবার   ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ২৪ ১৪২৯

  • || ১৫ রজব ১৪৪৪

ষাট গম্বুজ বার্তা

একের পর এক নতুন পালক যোগ হচ্ছে উন্নয়নে, সমৃদ্ধির পথে বাংলাদেশ

ষাট গম্বুজ টাইমস

প্রকাশিত: ৭ জানুয়ারি ২০২৩  

শুধু উন্নয়ন নয় সব কিছুর জন্যই একটা যোগ্য নেতৃত্ব দরকার, আর বাংলাদেশের বর্তমান যত উন্নয়ন, যত অর্জন, তার নেতৃত্ব দিচ্ছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ বিনির্মাণে এবং দেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন তাঁরই যোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা।

বাংলাদেশের দারিদ্রের কলঙ্ক, হাত পাতার কলঙ্ক, বিদেশি পচা গম খাওয়ার কলঙ্ক সব কিছু মুছে গেছে। দেশ আজ কলঙ্কমুক্ত এগিয়ে যাচ্ছে সমৃদ্ধির পথে। নিম্নআয়ের দেশ থেকে গ্রাজুয়েশন, স্বল্পোন্নত দেশের তালিকা থেকে উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণের চূড়ান্ত ধাপ অতিক্রম করেছে বাংলাদেশ।

অর্থনৈতিক উচ্চ প্রবৃদ্ধি, দারিদ্র্যের হার হ্রাস, শিক্ষা, স্বাস্থ্য যোগাযোগ খাতে অভূত সাফল্যের কারণে বিশ্বের বুকে মর্যাদার আসনে অধিষ্ঠিত। রাজধানী থেকে প্রত্যন্ত গ্রাম পর্যন্ত সর্বত্রই উন্নয়নের জোয়ার। এ সবকিছুই সম্ভব হচ্ছে বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে।

মেগা প্রকল্পের পাশাপাশি ভৌত অবকাঠামো উন্নয়নে অভূতপূর্ব উন্নতি ঘটেছে বাংলাদেশে। অর্থনীতিতে গতি আনতে দেশের যোগাযোগ ও পরিবহন খাতের উন্নয়নে সরকারের নেয়া বড় বড় প্রকল্পের কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। স্বপ্নে পদ্মা সেতু আজ বাস্তবতা। যানজটে নাকাল রাজধানীবাসীর সময় বাঁচাতে চালু হয়ে গেছে মেট্রোরেল। কর্ণফূলী নদীর তলদেশে উদ্বোধনের অপেক্ষায় 'বঙ্গবন্ধু টালেন'।

সামাজিক নিরাপত্তা খাতের বরাদ্দ দুই হাজার ৫০৫ কোটি টাকা থেকে বৃদ্ধি পেয়ে প্রায় ১ লাখ কোটি টাকা হয়েছে। বিদ্যুৎ উৎপাদন সক্ষমতা ৪,৯০০ মেগাওয়াট থেকে ২৫,৫৬৬ মেগাওয়াটে বৃদ্ধি পেয়েছে। ‘শেখ হাসিনার উদ্যোগ, ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ’ কর্মসূচির আওতায় আজ বাংলাদেশের শতভাগ জনগোষ্ঠী বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় এসেছে।

জিডিপির আকার ৪ লাখ ৮২ হাজার ৩৩৭ কোটি টাকা থেকে ৩৯ লাখ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। মাথাপিছু আয় ২০০৫-০৬ অর্থবছরে ৫৪৩ মার্কিন ডলার থেকে বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়িয়েছে দুই হাজার ৮২৪ মার্কিন ডলার। মূল্যস্ফীতি ৫-৬ শতাংশের মধ্যে সীমিত। দারিদ্র্যের হার ৪১ দশমিক ৫ শতাংশ থেকে কমে ২০ দশমিক ৫ শতাংশ এবং অতি দরিদ্রের হার দাঁড়িয়েছে ১০ দশমিক ৫ শতাংশ। বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ছুঁয়েছে ৪৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার (২০২১ সালের ২৩ আগস্ট)। বাজেটের আকার ২০০৫-০৬ অর্থবছরের তুলনায় ১১ গুণ বৃদ্ধি পেয়েছে।

বিশিষ্টজনরা বলছেন, অর্থনৈতিক বিকাশ অব্যাহত থাকলে ২০৩৫ সাল নাগাদ বিশ্বের ২৫তম বৃহৎ অর্থনীতির দেশে পরিণত হবে বাংলাদেশ। উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির পথে আজ বিশ্বের বিস্ময় বাংলাদেশ। বিশ্ব নেতাদের মুখে আজ বাংলাদেশের ভূয়সী প্রশংসা। সম্ভাবনার এ স্বর্ণদুয়ার উন্মোচনে আওয়ামী লীগ ও শেখ হাসিনা হয়ে ওঠেন অতীতের ঐতিহ্য সুরক্ষা, বর্তমানের সফল পথচলা এবং ভবিষ্যতে সুখী-সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার অকুতোভয় ও বিশ্বস্ত কান্ডারি। 

ষাট গম্বুজ বার্তা
ষাট গম্বুজ বার্তা