• শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৭ ১৪৩১

  • || ১৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

ষাট গম্বুজ বার্তা

মক্কায় হজযাত্রীদের হোটেলে উঠতে বিড়ম্বনা, ৮ এজেন্সিকে শোকজ

ষাট গম্বুজ টাইমস

প্রকাশিত: ২৩ মে ২০২৩  

শুরু হয়েছে হজযাত্রা। হজের প্রথম ফ্লাইট মক্কায় পৌঁছায় গত ২১ মে। সেই টিমে ৮টি হজ এজেন্সি ভিসা আবেদনে সময় যেসব হোটেলের ঠিকানা দিয়েছিল হজযাত্রীদের সেখানে উঠানো হয়নি। সেই সঙ্গে উপস্থিত ছিল না এজেন্সির কোনো গাইডও। ফলে হাজীদের নানা বিড়ম্বনায় পড়তে হয়েছে। এসব অভিযোগের প্রেক্ষিতে ৮ হজ এজেন্সিকে কারণ দর্শানোর নোটিশ (শোকজ) দিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। আগামী তিন দিনের মধ্যে মন্ত্রণালয়ে জবাব দিতে বলা হয়েছে।

সোমবার (২২ মে) ধর্ম মন্ত্রণালয়ের হজ অনুবিভাগের উপসচিব আবুল কাশেম মুহাম্মদ শাহীনের সই করা এক চিঠিতে শোকজ করে জবাব চাওয়া হয়েছে।

যেসব এজেন্সিকে শোকজ করা হয়েছে সেগুলো হলো- আল কাসেম ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরস, ইউরো বেঙ্গল ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরিজম, ইউরোপা ট্রাভেলস, কেআই ট্রাভেলস, এল আর ট্রাভেলস, এন জেড ফাউন্ডেশন এন্ড হজ মিশন, সাকের ট্যুরস এন্ড ট্রাভেলস এবং সানজেরি ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরস এজেন্সি।

শোকজে বলা হয়, গত ২১ মে বিজি ৩০০৫ নম্বর ফ্লাইটে ৮টি এজেন্সির হজযাত্রী মক্কায় পাঠানো হয়। এসব এজেন্সি হজযাত্রীদের ভিসা যে হোটেলের ঠিকানায় করা হয়েছে সে হোটেলে তাদের না উঠিয়ে মক্কার বিভিন্ন ফিতরা করা হোটেলে উঠানো হয়। মক্কার এসব হোটেলে হজযাত্রীদের রিসিভ করার জন্য এজেন্সির কোনো প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন না। ফলে হজযাত্রীরা তাদের জন্য নির্ধারিত হোটেল খুঁজে পেতে সমস্যায় পড়েন। ভিসা অনুসারে হোটেল না হওয়ায় তাদের লাগেজ হোটেলে পৌঁছাতে সমস্যা হয়। পরে হজ মিশনের চেষ্টায় বিষয়টি সমাধান হলেও এটি বিব্রতকর অবস্থার সৃষ্টি করে।

চিঠিতে আরও বলা হয়,  এমন অনিয়ম ও অব্যবস্থাপনা  হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন, ২০২১ এর ১২ ধারা অনুযায়ী প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়ার বিধান রয়েছে। তাই তাদের বিরুদ্ধে কেন প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তা আগামী তিন দিনের মধ্যে মন্ত্রণালয়ে জানাতে হবে।

এছাড়া মক্কা আল-মোকাররমা অফিস আদেশে হজযাত্রীদের স্বাস্থ্য সেবায় স্থাপিত মেডিকেল সেন্টারে দায়িত্ব পালনে সময়মত উপস্থিত না থাকায় বিল্লাল হোসেন নামে একজনকে শোকজ করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ গত ২২ মে বিকেল ৩টায় মদিনায় সমন্বিত হজ চিকিৎসক দলের দলনেতার নিকট রিপোর্ট করার নির্দেশনা থাকলেও তিনি তা করেননি। কেন তিনি অনুপস্থিত ছিলেন তা আজ ২৩ মে'র মধ্যে মৌসুমি হজ অফিসার, মক্কা-আল-মোকাররমা, সৌদিআরবের নিকট দিতে হবে।

৮ এজেন্সিকে শোকজের পর এই ঘটনার পুনরাবৃত্তি যেন না ঘটে সে কারণে হজ অনুবিভাগের উপসচিব আবুল কাশেম মুহাম্মদ শাহীন সই করা আরেক চিঠিতে ভিসা করা হোটেলের পরিবর্তে অন্য হোটেলে হজযাত্রী উঠানোর ক্ষেত্রে এজেন্সির প্রতিনিধি উপস্থিত থাকার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

ষাট গম্বুজ বার্তা
ষাট গম্বুজ বার্তা