• সোমবার ১৫ এপ্রিল ২০২৪ ||

  • বৈশাখ ২ ১৪৩১

  • || ০৫ শাওয়াল ১৪৪৫

ষাট গম্বুজ বার্তা

ভোট যুদ্ধে চতুর্থবারের মতো জয়ী বেগম হাবিবুন নাহার

ষাট গম্বুজ টাইমস

প্রকাশিত: ৮ জানুয়ারি ২০২৪  

মেয়র পত্নী বেগম হাবিবুন নাহার আবারও চতুর্থবারের মতো মোংলা-রামপাপলের অভিভাবকের দায়ীত্ব নিলেন। বাগেরহাট-৩ আসনটি বড়াবরই তাদের নিয়ন্ত্রনেই ছিল, কিন্ত এবারের নির্বাচনে তার সাথে এক শক্তিশালী স্বতন্ত্র প্রার্থী কঠোর ভাবে প্রতিদন্ধতা করছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিস আলী ইজারাদার।

তাকে পরাজিত করে (রামপাল-মোংলা) চতুর্থবারের মতো ব্যাপক ভোটের ব্যবধানে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন বন, পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রনালয়ের উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহার। নৌকা প্রতীক নিয়ে বাগেরহাট-৩ আসনটিতে ভোট যুদ্ধ লড়াই করে তিনি পেয়েছেন ৮৪ হাজার ৩৭২ ভোট।

আর তার নিকটতম প্রতিদন্ধী ঈগল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিস আলী ইজারদার পেয়েছেন ৫৮ হাজার ৪৬৮ ভোট। এ আসনটিতে চার বারের মতো ২৫ হাজার ৯০৪ ভোট পেয়ে বিজয়ী হলেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আঃ খালেকের সহধর্মীনি নৌকা প্রতিকের উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহার।

মোংলা-রামপাল এ দুই উপজেলায় মোট ৯৬টি কেন্দ্রের প্রাপ্ত ভোটের ফলাফলে সংশ্লিষ্ট প্রিজাইডিং কর্মকর্তারা রবিবার (৭ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ৯টায় এতথ্য নিশ্চিত করেছেন। মোংলার উপজেলা সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা নারায়ন চন্দ্র পাল ও রামপাল উপজেলার রহিমা সুলতানা বুশরা জানান, মোংলায় মোট ভোট কাস্ট হয়েছে ৫৮. ১০ শতাংশ আর রামপালে ৫৭. ৯৯ শতাংশ। এ দুই উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা দুই লাখ ৫৪ হাজার ৮৫৮।

এই আসনে এ দুই জন ছাড়া আরো প্রতিদ্বন্ধীতা করছিলেন পাঁচ জন প্রার্থী। এরা হচ্ছে, মফিজুল ইসলাম গাজী (ডাব প্রতিক) পেয়েছে মোট ২০৮ ভোট, ম্যানুয়েল সরকার (সোনালী আশ প্রতিক) পেয়েছে ২২৮ ভোট, মনিরুজ্জামান
মনি (নাঙ্গল প্রতিক) পেয়েছে ৬৭০ ভোট, নুরুজ্জামান মাসুদ (মশাল প্রতিক) পেয়েছে ৩৩৮ ভোট ও সুব্রত মন্ডল (নঙ্গর প্রতিক) ৪২৩ ভোট পেয়েছে দুই উপজেলা এবারের দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে।

বরিবার ৭ জানুয়ারী সকাল ৮টা থেকে বিরতিহীনভাবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলে ভোট গ্রহণ। তবে প্রশাসনের করা নজদারী থাকায় কোন অপ্রতিকর ঘটনা ছাড়াই এবারে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ অবাধ সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন উপহার দিতে পেরেছেন বলে জানায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নারায়ন চন্দ্র পাল।

এদিকে রবিবার রাতে নৌকা প্রতিকের বিজয়ের খবর শুনে মোংলা শহরে দফায় দফায় আনন্দ মিছিল বের করে নৌকা প্রতীকের কর্মী-সমর্থকরা। অন্যদিকে, সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ঈগল প্রতিকের কর্মী সমার্থকদের উপর হুমকি ধামকি ও ভয়ভীতি দেয়ার অভিযোগ তুলে সাংবাদ সম্মেলন করেছে স্বতন্ত্র প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিস আলী ইজারাদার।

ষাট গম্বুজ বার্তা
ষাট গম্বুজ বার্তা